শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:০২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জনসংযোগে ব্যস্ত-৪নং স্বরূপপুর ইউনিয়নের নৌকা মনোনয়ন প্রত্যাশি বশির আহম্মেদ “স্মৃতিচারণ” ২য় শ্রেণীর দুই ছাত্রীকে যৌন হয়রানি অভিযোগ উঠেছে মাদ্রাসা শিক্ষকের বিরুদ্ধে,শিক্ষক পলাতক! মহেশপুরে ইজিবাইক চালককে পিটিয়ে হত্যা ১৪/০৯/২০২১ তারিখ রাউজানে চট্টগ্রাম জেলা কার্যালয় এর অভিযানে রাউজানে একাধিক মদের মামলার আসামী ১৫ লিটার মদ সহ গ্রেফতার ০১ জন, মামলা দায়েরঃ দ্বীপ উন্নয়ন সংস্থার কর্মপ্রচেষ্টায় প্রাণী সুরক্ষাসেবা কার্যক্রম। জীবননগরে ওষুধের দাম বেশি নেওয়ার অভিযোগ !!! পাব কি ঠাঁই? সরকারি কর্মকর্তাদের ‘স্যার-ম্যাডাম’ বলার রীতি নেই প্রাথমিক বিদ্যালয় রিওপেনিং নিয়ে নোয়াখালী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস কৃর্তক আলোচনা

বৃন্দাবনের জন্মদিনে আবেগঘন স্ট্যাটাস খুশির

দৈনিক বাংলার মুখ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় শুক্রবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৮
  • ২৯৭ বার পড়া হয়েছে

বাংলার মুখ ডেক্স:

জনপ্রিয় নাট্যকার ও অভিনেতা বৃন্দাবন দাসের জন্মদিনে একটি আবেগঘন স্ট্যাটাস দিয়েছেন তার স্ত্রী আরেক জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাহনাজ খুশি।

স্বামীর জন্মদিন উপলক্ষে দেয়া ওই স্ট্যাটাসে খুশি তাদের সংসার জীবনের শুরুর দিকে স্মৃতিচারণ করেছেন।

দাম্পত্য জীবনে একসঙ্গে চলতে গিয়ে অনেক সময় অর্থসংকটে পড়েছেন, সে কথাও অকপটে স্বীকার করেন তিনি।

বলেছেন, এমন দিন গেছে-টানা সাত মাস শুধু পেঁপেভর্তা দিয়ে তারা ভাত খেয়েছেন।

খুশি লিখেছেন-আমরা দুজনই মোটামুটি বেশ সচ্ছল পরিবারের ছিলাম। অন্তত মাছ-মাংস ছাড়া ভাত খাইনি কোনো দিন। আমাদের সংসারের একদম শুরুর দিকে মাত্র দুই হাজার টাকা বেতনে চাকরি করত বৃন্দাবন।

খুশি জানান, ১৪০০ টাকা ঘরভাড়া, বাকি ৪০০ টাকা পাশের মুদি দোকানে জমা দিয়ে মাসের চাল আর তেল নুন নিতাম। ২০০ টাকা হাত খরচ রাখতাম থিয়েটারের জন্য।

জনপ্রিয় এ অভিনেত্রী বলেন, বেশিরভাগ সময় রিহার্সেলে হেঁটে যেতাম। ফেরার পথে রিকশায়। মুদি দোকানে তখন তরকারি বলতে ছিল আলু আর পেঁপে। যেহেতু পেঁপের দাম ছিল কম (২ টাকা কেজি), তাই একমাত্র পেঁপেই নিতাম।

‘আমার মনে আছে- সাত মাস পেঁপেভর্তা ছাড়া কিছু খাইনি। হঠাৎ একদিন অফিস থেকে ফিরে বৃন্দাবন খুবই বেদনার্তভাবে কান্না করতে লাগল। কান্নার ব্যাকুলতা বোঝানো যাবে না। এখনও মনে হলে আমার চোখ ভিজে যায়!

সেই সঙ্গে এই কথা- ‘তুমি আমাকে ক্ষমা করে দাও…’। আমি যতই বলি কী হয়েছে, সে একই কথা বলে আর কাঁদে!

অনেক পরে শান্ত হলে জানলাম- সে যেহেতু তার বসের পিএ ছিল, বসের একটা লেখা পৌঁছে দেয়ার জন্য সে মেট্রোপলিটন হোটেলের একটা সেমিনারে গিয়েছিল। লাঞ্চ টাইম হওয়ায় তাকে বসের পক্ষে লাঞ্চ খেতে হয়েছে।

সে খাবারে মাছ-মাংস দুই ছিল! যেহেতু আমরা ৬-৭ মাসের বেশি মাছ-মাংস খেতে পারি না অর্থ সংকটের জন্য; সে কারণে এই বিলাসী খাবার খেয়ে সে নিজেকে ক্ষমা করতে পারে নাই…।’

স্বামীকে উদ্দেশ্য করে খুশি আরও লিখেন- ‘বৃন্দাবন, পরবর্তী জীবনের দিনগুলোর সীমাহীন না পাওয়া চোখ বন্ধ করে পাড়ি দিতে পেরেছি, এমন কিছু দরদি সত্যের জন্য।

তুমি নাই, অথচ তোমার জন্ম তারিখ আছে, এমন দিন যেন আমার জীবনে দেখতে না হয়। তোমার দীর্ঘায়ু আমার আজ একমাত্র শুভাশিষ। শুভ জন্মদিন…

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো পোস্ট
© All rights reserved © 2021 dainikbanglarmukh
Theme Developed BY ThemesBazar.Com